ঢাকা   সোমবার, ৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৩ মাঘ ১৪২৯   রাত ৯:৪৯ 

সর্বশেষ সংবাদ

বাজেটে আইন মন্ত্রণালয়ের জন্য বরাদ্দ ১৮১৩ কোটি আর সুপ্রিম কোর্টের জন্য ২২৫ কোটি টাকা; ডিজিটালাইজড হবে বিচার ব্যবস্থা

বিচার কার্যক্রমে গতিশীলতা বাড়াতে তথ্যপ্রযুক্তি ও দরকারি অবকাঠামোগত উন্নয়নের মাধ্যমে বিচার ব্যবস্থাকে ডিজিটালাইজড করার উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। আর এ উদ্যোগ বাস্তবায়নে আইন এ বিচার মন্ত্রণালয় এবং সুপ্রিমকোর্টের জন্য বাজেট বাড়ানো হয়েছে। ২০২১-২২ অর্থবছরের বাজেটে সুপ্রিম কোর্টের জন্য ২২৫ কোটি টাকা বরাদ্দের প্রস্তাব করা হয়েছে। যা ২০২০-২১ অর্থবছরে সংশোধিত বাজেটে বরাদ্দ ছিল ১৮৭ কোটি টাকা। অর্থাৎ বিদায়ী অর্থবছরের সংশোধিত বাজেটের তুলনায় নতুন অর্থবছরে সর্বোচ্চ আদালতের জন্য বরাদ্দ থাকছে ৩৮ কোটি টাকারও বেশি। আর বাজেটে আইন ও বিচার বিভাগের জন্য পরিচালন ও উন্নয়ন খাত মিলিয়ে এক হাজার ৮১৩ কোটি টাকা বরাদ্দ প্রস্তাব করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৩ জুন) জাতীয় সংসদে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বাজেট বক্তৃতায় এই প্রস্তাব পেশ করেন। মহামারির বাস্তবতায় দাঁড়িয়ে অর্থনীতির ক্ষত সারানোর পাশাপাশি মানুষের জীবন-জীবিকা রক্ষার চ্যালেঞ্জ সামনে নিয়ে নতুন অর্থবছরের জন্য ছয় লাখ তিন হাজার ৬৮১ কোটি টাকার বাজেট জাতীয় সংসদে উপস্থাপন করেছেন অর্থমন্ত্রী।

বাজেটে আইন ও বিচার বিভাগের জন্য পরিচালন ও উন্নয়ন খাত মিলিয়ে এক হাজার ৮১৩ কোটি টাকা বরাদ্দ প্রস্তাব করা হয়েছে। এর মধ্যে পরিচালন খাতে এক হাজার ৪৬৪ কোটি এবং উন্নয়ন খাতে ৩৪৯ কোটি টাকা বরাদ্দের প্রস্তাব করা হয়েছে। ২০২০-২১ অর্থবছরের সংশোধিত বাজেটে আইন ও বিচার বিভাগের জন্য পরিচালন ও উন্নয়ন খাত মিলিয়ে মোট এক হাজার ৭১৬ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়। এর মধ্যে পরিচালন খাতে ছিল এক হাজার ৩১৩ কোটি এবং উন্নয়ন খাতে ৪০৩ কোটি টাকা। অর্থমন্ত্রী বাজেট বক্তৃতায় বলেন, বিচার কার্যক্রমে গতিশীলতা বৃদ্ধির জন্য তথ্য-প্রযুক্তি সংশ্লিষ্ট প্রয়োজনীয় অবকাঠামোগত উন্নয়নের মাধ্যমে দেশের বিচার ব্যবস্থাকে ডিজিটালাইজড করা হচ্ছে। ই-জুডিশিয়ারি প্রকল্পের আওতায় এটি ডিজিটালাইজড হবে। দেশের প্রতিটি আদালতকে ই-কোর্টে পরিণত করা হবে। আটককৃত দুধর্ষ আসামিদের আদালতে হাজির না করে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বিচারকার্য পরিচালনা করা হবে। সুপ্রিম কোর্টসহ অধস্তন আদালতের কার্যক্রম অটোম্যাশন এবং নেটওয়ার্কের আওতায় আনা হবে। অধস্তন আদালতে বিচারাধীন মামলার তথ্য নিয়মিত ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হবে। এসব উদ্যোগ বাস্তবায়নের মধ্য দিয়ে বিচারপ্রার্থীরা শিগগির এর সুফল পাবেন।
গত তিন বছরের বাজেট পর্যালোচনা করে দেখা যায়, ২০১৯-২০২০ অর্থবছরে প্রস্তাবিত বাজেটে আইন ও বিচার বিভাগের জন্য বরাদ্দ ছিল একহাজার ৬শ ৩২ কোটি টাকা। ২০২০-২০২১ অর্থ বছরে আইন ও বিচার বিভাগের জন্য বরাদ্দ রাখা হয়েছিল এক হাজার ৭শ ৩৯ কোটি টাকা। ২০২১-২০২২ অর্থবছরে প্রস্তাবিত বাজেটে বরাদ্দ দেয়া হয়েছে ১৮১৩ কোটি টাকা।
২০২০-২০২১ অর্থ বছরের প্রস্তাবিত বাজেটে সর্বোচ্চ আদালত সুপ্রিম কোর্টের জন্য বরাদ্দ রাখা হয়েছিল ২২২ কোটি টাকা। পক্ষান্তরে ২০২১-২০২২ অর্থ বছরের প্রস্তাবিত বাজেটে সর্বোচ্চ আদালত সুপ্রিম কোর্টের জন্য বরাদ্দ রাখা হয়েছে ২২৫ কোটি টাকা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সবচেয়ে আলোচিত