ঢাকা   রবিবার, ২ অক্টোবর ২০২২, ১৭ আশ্বিন ১৪২৯   সন্ধ্যা ৭:৫৬ 

সর্বশেষ সংবাদ

যে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক বাংলাদেশে পাই সেটা পৃথিবীর অন্য কোথাও পাওয়া যায় না : রিভা গাঙ্গুলী

আরও বড় দায়িত্ব নিয়ে দেশে ফিরে যাচ্ছেন ঢাকাস্থ ভারতীয় হাইকমিশনার রিভা গাঙ্গুলি দাশ। প্রায় দেড় বছর দায়িত্ব পালন করেন তিনি। বাঙালী এই নারী কূটনীতিক বাংলাদেশের মানুষকে আপন করে নিয়েছিলেন। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় রাজধানীর হোটেল সোনারগাঁওয়ে বাংলাদেশের সাংবাদিকদের সঙ্গে এক বিদায়ী অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, বাংলাদেশের সঙ্গে যে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক, এখানে যে আতিথেয়তা পাওয়া যায়, তা অন্য কোথাও পাওয়া যায় না।
তিনি বলেন, ‘আমি গত বছরের মার্চ মাসে এসেছি। আমাদের একটা অনেক ক্লোজ রিলেশনশিপ বাংলাদেশের সঙ্গে হয়ে যায়। আমি সবসময় বলি, আমরা যে হসপিটালিটি, যে বন্ধন, যে ফ্রেন্ডশিপটা এই দেশে পাই সেটা পৃথিবীর কোনো জায়গায় পাওয়া যায় না।’
সাংবাদিকদের উদ্দেশে রিভা গাঙ্গুলি বলেন, ‘অনেক সময় আপনাদের স্টরিগুলোর সঙ্গে আমাদের ভিন্ন মত থাকে। এটা ভুল, ওটা ভুল কোট হয়েছে ইত্যাদি। দ্যাট ইস দ্যা পার্ট অফ দ্যা রিলেশনশিপ। সেটাই আমাদের ক্লোজনেস, সেটাই আমাদের ক্লোজ রিলেশনশিপ দেখায়।’


করোনা মহামারির কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘এখন ভালো সময়ের মধ্যেই নেই আমরা। তবে খুব লাকি অ্যান্ড ভেরি ইম্পরট্যান্ট যে, একটা সময় আমি এখানে এসেছি, নতুন সরকার এসেছে আমাদের দেশে। এখানে, অনেক কিছু করার অপরচুনিটি পেয়েছি। গত বছর অনেক কিছু হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী দুইবার ভারতে গিয়েছেন।’

ভারতীয় হাইকমিশনার আরো বলেন, ‘আমরা খুব এক্সাইটেড ছিলাম যে, মুজিব বর্ষে আমরা অনেক কিছু এক সঙ্গে করবো। আনফরচুনেটলি, কিন্তু আমরা এই লিমিটেড ওয়ের মধ্যেও একটা গুড গিফটিং সিরেমনি করেছি ১০০টা কলেজ-ইউনিভার্সিটিকে। বঙ্গবন্ধুর উপর একটা কবিতার প্রোগ্রাম করেছি। আগামীতে আরো প্রোগ্রাম করবো।’

এসময় তিনি বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যে রেল কন্টেইনারে পণ্য পরিবহনের কথা বলেন তিনি। এছাড়া নদী পথে ভারতের ত্রিপুরায় বাংলাদেশি পণ্য যাওয়ার কথাও বলেন। ত্রিপুরায় বাংলাদেশ থেকে প্রিমিয়ার সিমেন্টের একটি চালান যায়। এসবের মাধ্যমে তিনি বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যে বাণিজ্য এবং অর্থনৈতিক সম্পর্ক উন্নয়নের ইঙ্গিত দেন।
বাংলাদেশের মানুষের ভালোবাসা ও তাদের স্মরণ করার কথা উল্লেখ করে বিদায়ী এই হাইকমিশনার বলেন, ‘কোভিডের মধ্যে অনেক রেস্ট্রিকশন ছিলো। ফিজিক্যাললি মুভমেন্ট, কোথাও যাওয়া-আসায়। তারপরেও আমরা সবাই বাড়িতে বসেই কাজ করেছি। অনেক রকমের ডেভেলপমেন্ট হয়েছে। আপনারা অনেকেই বলছিলেন আমাকে মিস করবেন, আমিও আপনাদের সবাইকে মিস করবো।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

seventeen + eighteen =

সবচেয়ে আলোচিত